খুব সহজে আপনার ওয়েবসাইটের ডোমেইনটি ফেসবুকে ভেরিফাইড করে নিন একদম ফ্রিতে

আসসালামু আলাইকুম। কেমন আছেন সবাই? আশা করি সবাই ভাল আছেন।আমিও ভাল আছি।

আমরা প্রতিনিয়ত নানা রকম জিনিস শিখতেছি। ইন্টারনেটে এখন শেখার বিষয় কম নেই শুধু আপনার আগ্রহ থাকলেই হইলো। আপনার আগ্রহ থাকলেই আপনি নানা রকম বিষয় জানতে পারবেন। আমাদের সাইট টি হলো একটি শেখার সাইট যেখানে আপনি নানারকম বিষয় শিখতে পারবেন।

আজকের আলোচনা

আজকে যারা ওয়েবসাইট নিয়ে কাজ করে তাদের জন্য একটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ পোস্ট নিয়ে হাজির হয়েছি। আমরা অনেকেই ওয়েবসাইট খুলেছি। অনেকে অনেক বিষয়ে নিয়ে কাজ করে থাকি। তো আমরা জানি একটা ওয়েবসাইট তৈরি করতে ডোমাইন এবং হোস্টিং লাগে এটা ছাড়া ওয়েবসাইট তৈরি করা সম্ভব না। আপনি ফ্রিতে হোস্টিং এবং ডোমেইন নিয়ে সাইট তৈরি করতে পারবেন কিন্তু ওয়েবসাইট নিয়ে আমাদের যে লক্ষ্য টাকা ইনাকাম এটা সম্ভব না। এটা করতে আপনাকে অবশ্যই টাক দিয়ে ডোমাইন এবং হোস্টিং কিনে ওয়েবসাইট এ কাজ করতে হবে। ওয়েবসাইট নিয়ে কাজ করতে হলে আমাদের অনেক বিষয়ে জানতে হয়। আপনি যদি এই বিষয় গুলো না জেনে থাকেন তাহলে অনেক সময়ে আপনি ঝামেলা তে পড়বেন।

ধরুন একটা জিনিস করতে আপনাকে পূর্ব অবিজ্ঞতা দরকার কিন্তু আপনি সে অবিজ্ঞতা টি অর্জন না করেই কাজে লেগে পরলেন তাহলে কিন্তু আপনি পরবর্তী তে অনেজ কাজে আপনাকে আটকে যেতে হবে। তাই কিছু কিছু জিনিস এর ক্ষেত্রে আপনাকে অবশ্যই পূর্ব অবিজ্ঞতা রাখতে হবে তাহলেই আওনি আওনার লক্ষ্যে পৌঁছাতে পারবেন। ঠিক একই আপনি যদি ওয়েবসাইট এর মাধ্যমে ব্লগিং করে ইনকাম করতে চান তাহলে ওয়েবসাইট তৈরি থেকে শুরু করে অনেক বিষয়ে জানতে হবে। তো আজকে আমি ওয়েবসাইট এর একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় ডোমাইন এর ফেসবুক ভেরিফাই নিয়ে কথা বলবো।
আজকে আমি শিখাবো কিভাবে আপনি ফেসবুকে নিজের ডোমেইন ভেরিফাই করে নিবেন।

কেন আপনি ডোমেইন ভেরিফাই করবেন?

আপনার হয়তো মনে হতে পারে আমি নিজের টাকা দিয়া ওয়েবসাইট তৈরি করে কেনো আমি ফেসবুক ডোমেইন ভেরিফাই করবো?? তাহলে চলুন আমি একটু খুলে বলি আমাদের যাদের ওয়েবসাইট আছে আমার কিন্তু একটা লক্ষ নিয়ে সাইট খুলে থাকি এটা হলো অ্যাডসেন্স আর অ্যাডসেন্স পেতে হলে আপনাকে সামান্য কিছু হলেও ভিসিটর দরকার। এখন আপনি SEO করতে না পারেন তাহলে এই ভিসিটর কই পাবেন।

নিচ্চয় আপনাকে সোসাল মিডিয়ার দারস্ত হতে হবে আর এখন ফেসবুক হলো একটা জনপ্রিয় সোসাল মিডীয়া। তাই আপনাকে এখানে আপনার সাইট লিনক শেয়ার করতে হবে। তা না হলে আপনি এই ভিসিটর পাবেন না। এখন আপনি বলতে পারেন ফেসবুকে তো শুধু লিং দিয়ে পোস্ট করলেই হয় হুম হয় কিন্তু আপনি কছু দিনের মাঝেই আপনি আর লিং দিয়ে পোস্ট করতে পারবেন না কারণ আপনার ওয়েবসাইট ডোমেইন টি ফেসবুক থেকে ব্লোক করে দিবে আপনি যদি আপনার ডোমাইন টি ভেরিফাই না করেন।আর আজকে আমি দেখাবো কিভাবে আপনি আপনার ওয়েবসাইট ডোমেইন টি ফেসবুক ফেরিফাই করবেন।তাহলে চলুন শুরু করি।

যেভাবে ফেসবুকে ডোমাইন ভেরিফাই করবেন

প্রথমে আপনি নিচের লিং এ জান। অবশ্যই chorme ব্রাউজার টি desktops mood করে নিবেন। আপনি এখানে যেকোনো ব্রাউজার থেকে কাজ টি করতে পারেন। তবে আপনি যদি chromeব্রাউজার ব্যাবহার করেন তাহলে সব থেকে ভালো হ

click here

এবার নিচের মত পেজ আসবে। এবার আপনি স্কিনশর্ট ফলো করুন।স্কিনশর্টে মার্ক করা অপশন এ ক্লিক করুন।

 

এবার নিচের মত একটা পেজ আসবে। এখানে আপনি আপনার সাইট লিং টা দিন। এরপর অ্যাড অপশন এ ক্লিক করুন।

 

এবার এই পেজ এ নিয়া আসবে। এখানে অনেক গুলা ভেরিফাই অপশন থাকবে আমরা সহজ অপশন টি ইউজ করবো।নিচের মার্ক করা কোড টা কপি করে নিন।

এবার আপনি আপনার সাইট এর আডমিন প্যানেল এ চলে জান এরপর appearance এ ক্লিক করুন তারপর থিম এডিটর এ ক্লিক করুন।

 

এবার header php টা সিলেক্ট করুন। তারপর নিচের মার্ক করা জায়গায় কোড টি পেস্ট করুন। তার পর আপনি update অপশন এ ক্লিক করুন এবং নিচের লিং বা অই পেজ এ গিয়ে verify button এ ক্লিক করুন।

দেখেন ভেরিফাই হয়ে গেসে।

 

এবার আর ফেসবুক থেকে কখনো আপনার ওয়েবসাইট ডোমেইন ব্লোক করবে না। আপনি ইচ্ছা মত লিংক শেয়ার করতে পারবেন কোনও ঝামেল ছারাই।

যেহেতু এটি একদম ফ্রি তাই সবাই নিজের ওয়েবসাইটের ডোমেইনটি ভেরিফাইড করে নিবেন তাহলে কখনো আর ফেসবুকের সমস্যা হবে না এবং আপনার ওয়েবসাইটটি ফেসবুকে একদম নিরাপদ থাকবে আশা করি বুঝতে পারছেন যদি পোস্টটি আপনার কাছে ভালো লাগে তাহলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে পারেন সবাই ভাল থাকবেন সুস্থ থাকবেন আমাদের সাথেই থাকবেন ধন্যবাদ

Leave a Comment

Your email address will not be published.